কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল

Posted By: Debalina Dutta

গোল্ডকোস্ট কমনওয়েলথ গেমসের আগেই সিরিঞ্জ বিতর্কে জেরবার ভারতীয় শিবির। এরই জেরে ভারতীয় দলের সঙ্গে আসা সব অ্যাথলিটদের ডোপ টেস্টের ভাবনায় কমনওয়েলথ গেমসের আয়োজকরা।

কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল

একজন অভিজ্ঞ বক্সারের ঘরের বাইরে গেমস ভিলেজে পাওয়া গেছে একটি ব্যবহৃত সিরিঞ্জ। তারপরেই সব বক্সারদের মূত্রের নমুনা পরীক্ষার জন্য দিতে বলা হয়েছে। শুধু তারাই নয় সোমবার পরীক্ষা দিয়েছেন জিমন্যাস্টরা। আর রবিবারই পরীক্ষা হয়ে গেছে ভারোত্তলকদের।

আসলে কমনওয়েলথ গেমসের নীতি নির্ধারন কমিটি নো নিডল পলিসি তৈরি করেছে। আর সেটাই ভারতীয় দলের পক্ষ থেকে ভাঙা হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ান স্পোর্টস অ্যান্টি ডোপিং এজেন্সি (এএসএডিএ) -কে নিজেদের মূত্রের নমুনা দিতে হয়েছে বিভিন্ন অ্যাথলিট দল গোল্ডকোস্টে পৌঁছনোর পরই দিতে হয়েছে। এবারের ভারতের থেকে ২২৫ জন অ্যাথলিটের দল গেছে অস্ট্রেলিয়ার গোল্ডকোস্ট কমনওয়েলথ গেমসে।

পৌঁছনোমাত্র মূত্রের নমুনা সংগ্রহ অবশ্য কোনও বিশেষ বিষয় নয়,কারণ গেমসকে পরিচ্ছন্ন রাখতে এটা করাই হয়। তবে অস্ট্রেলিয়ায় যেভাবে কড়াকড়ি করা হচ্ছে তা কার্যত নজিরবিহীণ। এমনকি প্লেয়ারদের ফ্লাইট থেকে নেমে ঘরে পৌঁছনোর আগেই নেওয়া হয়েছে মূত্রের নমুনা।

ভারতীয় দলের সঙ্গে যাওয়া কোচ জানিয়েছেন,'লম্বা উড়ানের পর প্লেয়াররা সকলেই নিজেদের ঘরে বিশ্রাম নিচে ইচ্ছুক ছিলেন। কিন্তু নিজেদের ঠিকভাবে রাখার আগেই তাঁদের মূত্রের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। এটা শুধু কড়া নয়, রীতিমতো লজ্জাজনক অ্যাথলিটদের পক্ষে। কোনও একজনের করা অন্যায়ের শাস্তি সকলকে পোহাতে হচ্ছে। '

ডোপিংয়ের ওপর কড়া নিয়ন্ত্রণ রাখতে হাউস কিপিং স্টাফদের সঙ্গে মিশে রয়েছেন অস্ট্রেলিয়ান অ্যান্টি ডোপিং -র আধিকারিকরা। ভারতীয় বক্সারদের পাশে দাঁড়িয়ে দাবি করা হয়েছে ওই সিরিঞ্জ ওষুধ নেওয়ার জন্যেই ব্যবহৃত হয়েছে। পাশাপাশি ভারতের বক্সিং হাই পারফরম্যান্স ডিরেক্টর দাবি করেছেন ওই সিরিঞ্জ দিয়ে কোনওরকমের ভিটামিন নেওয়া হয়েছিল।

একটি ক্রাশড প্লাস্টিক বোতলের মধ্যে ভাঙা অবস্থায় সিরিঞ্জটি ডাস্টবিনে ফেলা হয়েছিল।পুরো বিষয়টিকে নীতি নির্ধারণ কমিটি নিয়ম বিধিভঙ্গের মধ্যে ফেলছে। একনজরে দেখে নেওয়া কী কী নিয়ম রয়েছে।

কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল
কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল
কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল

'নো নিডল পলিসি'
---------------
চিকিৎসক ছাড়া কারোর ছুঁচ ব্যবহার করায় নিষেধ। চোট, অসুস্থতা, ও বিভিন্ন শারীরিক অস্বস্তিতে চিকিৎসকরা ব্যবহার করবেন সিরিঞ্জ। যাদের নিয়মিত সিরিঞ্জ দিয়ে ওষুধ নিতে হয় তাদের চিকিৎসকের প্রামাণ্য পত্র দিতে হবে। (ডায়াবেটিসের রোগী যাঁরা ইনসুলিন নেন)
কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল
কমনওয়েলথে পারফরম্যান্স আসার আগেই বিতর্ক, সিরিঞ্জ নিয়ে চাপে ভারতীয় দল

কমনওয়েলথ গেমস অ্যাসোসিয়েশান নিশ্চিতভাবে একটা সুনির্দিষ্ট জায়গা থেকে ছুঁচ রাখার ব্যবস্থা করা হয়। যেখানে কমনওয়েলথ গেমসে আসা প্রতিনিধি দলের স্বীকৃতিপ্রাপ্ত ব্যক্তিই যেতে পারে।

যে অ্যাথলিটরা ইনসুলিন নেন তাঁরা ও অখেলোয়াড় ব্যক্তি যাঁরা নেন তাঁরা সুনির্দিষ্ট জায়গাতেই ছুঁচ রাখবেন, পাশাপাশি নির্দিষ্ট জায়গাতেই তা ফেলবেন।

প্রতিটা ব্যবহৃত ছুঁচ এবং তার সমস্ত সঙ্গের জিনিস যেমন ভয়াল, সিরিঞ্জ, তুলো সব কিছু বায়ো হ্যাডার্ড পরিত্যক্ত জিনিস ফেলার কন্টেনারেই ফেলতে হবে।

গেমস চলাকালীন কোনও কেউ যদি ইঞ্জেকশন নেয় তাহলে তাঁকে ইঞ্জেকশন ডিক্লেরেশন ফর্ম পূরণ করতে হবে। এবং ইঞ্জেকশন নেওয়ার পরই কমনওয়েলথ গেমস ফেডারেশনের মেডিকাল কমিশনে সেদিনের দুপুরের মধ্যে জানাতে হবে।

Story first published: Tuesday, April 3, 2018, 11:35 [IST]
Other articles published on Apr 3, 2018

পান মাইখেল-এর ব্রেকিং নিউজ অ্যালার্ট
mykhel Bengali